কানাডায় বাড়ি কিনতে পারবেন না বিদেশি বিনিয়োগকারীরা

বিদেশি বিনিয়োগকারীদের জন্য বাড়ি কেনার সুযোগ বন্ধ করে দিল কানাডা। বছরের প্রথম দিন থেকেই এ আইন কার্যকর করা হয়েছে।

আবাসনসংকটে থাকা স্থানীয় বাসিন্দাদের জন্য বাড়িঘর সহজলভ্য করতে এ নিষেধাজ্ঞা দেওয়া হয়েছে। এ খবর জানিয়েছে সিএনএন।

তবে উদ্বাস্তু ও কানাডার স্থায়ী বাসিন্দারা (যারা নাগরিক নন) বাড়ি কিনতে পারবেন।

বাড়ির দাম ক্রমাগত বাড়তে থাকায় আগামী দুই বছর বিদেশিরা দেশটিতে বিনিয়োগ হিসেবে বাড়ি বা আবাসিক সম্পত্তি কিনতে পারবেন না।

মহামারির শুরুর পর থেকে কানাডিয়ান বাড়ির দাম বাড়তে থাকে। সে কারণে বাড়ির দামে লাগাম টানতেই আইনটি পাস করা হয়েছে। তবে এখন বাড়ির দাম কিছুটা কমেছে। দেশটির কিছু রাজনীতিক নেতা বিশ্বাস করেন, বিদেশি ক্রেতাদের কারণেই আবাসন খাতে সঙ্কট সৃষ্টি হয়েছে।

গেল বছর প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডোর দলের ক্যাম্পেইন ওয়েবসাইটে বলা হয়, কানাডার বাড়িগুলো লাভজনক। এগুলো ধনী প্রতিষ্ঠান ও বিদেশি বিনিয়োগকারীদের আকৃষ্ট করছে। এটা একটা সত্যিকারের সমস্যা সৃষ্টি করছে। বাড়িগুলো দেশের মানুষের জন্য, বিনিয়োগকারীদের জন্য নয়।

তবে নতুন আইনের কারণে সেখানকার হাউজিং ব্যবসায়ীরা উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন। তারা আইনের কিছু বিষয় নমনীয় করার আহ্বান জানিয়েছেন।

কানাডিয়ান রিয়েল এস্টেট অ্যাসোসিয়েশনের তথ্য অনুযায়ী, ২০২২ সালের শুরুতে বাড়ির গড় মূল্য ৮ লাখ কানাডীয় ডলারের (৬ কোটি ৭ লাখ টাকা) চেয়ে বেশি ছিল। গত মাসে তা কমে ৬ লাখ ৩০ হাজার কানাডীয় ডলারে (৪ কোটি ৭৮ লাখ টাকা) দাঁড়িয়েছে।

কানাডার জাতীয় জরিপ সংস্থার তথ্য অনুযায়ী, দেশটিতে বিদেশিদের মালিকানায় থাকার ঘরবাড়ির সংখ্যা ৫ শতাংশের কম। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, বিদেশি ক্রেতাদের ওপর নিষেধাজ্ঞা দিয়ে স্থানীয়দের কাছে বাড়িঘর সহজলভ্য করার যে প্রত্যাশা করা হচ্ছে, তাতে খুব একটা লাভ হবে না। তার চেয়ে বেশি করে বাড়িঘর নির্মাণের পরামর্শ দিয়েছেন তারা।

এমন আরো সংবাদ

একটি উত্তর দিন

দয়া করে আপনার মন্তব্য লিখুন !
দয়া করে এখানে আপনার নাম লিখুন

সর্বশেষ বিনোদন