বক্স অফিস কাপাচ্ছে ‘গডজিলা ভার্সেস কং’

গডজিলা ভার্সেস কং মুভিটি পরিচালনা করেছেন অ্যাডাম উইংগার্ড এবং গল্পের লেখক ছিলেন এরিক পিয়ারসন, ম্যাক্স বোরেনস্টাইন। বিশেষ চরিত্রে অভিনয় করেছেন আলেকজান্ডার স্কারসগার্ড, মিলি ববি ব্রাউন, রেবেকা হল। ২০২১ সালের ২৪ মার্চ গডজিলা ভার্সেস কং মুক্তি পায় বিশ্বব্যাপী। বাংলাদেশের স্টার সিনেপ্লেক্সেও মুক্তি পায় সিনেমাটি। যদিও লকডাউনের কারণে বর্তমানে সিনেপ্লেক্সে গিয়ে বাংলাদেশের দর্শকরা সিনেমাটি উপভোগ করতে পারছেন না।


ইন্টারনেট মুভি ডাটাবেজে এখন পর্যন্ত ১৫,৩০৪ টি ভোটের মাধ্যেমে ৭.৪/১০ রেটিং প্রাপ্ত হয়েছে মুভিটি। ১৬০-২০০ মিলিয়ন বাজেটের গডজিলা ভার্সেস কং মুভিটি বক্স অফিসে ১২৩.১ মিলিয়ন আয় করে। বিশ্বখ্যাত সিনেমা প্রযোজন প্রতিষ্ঠান ওয়ার্নার ব্রাদার্স ও লেজেন্ডারি এনটারটেইনমেন্ট যেন একটু স্বস্তির নিশ্বাস ফেলছে। করোনাকালে এ মুভিটি এখন পর্যন্ত সর্বোচ্চ আয়ের রেকর্ড করেছে। উত্তর আমেরিকার তিন হাজারের অধিক প্রেক্ষাগ্রহে ছবিটি প্রদর্শিত হচ্ছে যা করোনাকালে আরেকটি রেকর্ড।
করোনাকালের মধ্যে সিনেমার খারাপ ব্যবসা নিয়ে যখন সবাই মাথা ঠুকছেন তখন প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান দুটি দেখেছে মুনাফা। তাদের নতুন সিনেমা গডজিলা ভার্সেস কং করোনাকালের সবচেয়ে বেশি আয়ের রেকর্ড করে ফেলেছে এক সপ্তাহেই। ২৪ মার্চ সিনেমাটি বিভিন্ন দেশে মুক্তি পায়।

বিনোদন ও সংস্কৃতি বিষয়ে নামকরা ম্যাগাজিন ভ্যারাইটি জানিয়েছে, অনেকেই মনে করছেন এক বছরেরও বেশি সময় ধরে দর্শকরা নেটফ্লিক্সে সিনেমা দেখতে দেখতে ক্লান্ত হয়ে উঠেছেন। তাই তারা এখন প্রেক্ষাগৃহে গিয়ে সিনেমা দেখতে চাইছেন।

সিনেমাটি দেখা যাচ্ছে ভিডিও অন ডিমান্ড প্ল্যাটফর্ম এইচববিও ম্যাক্সে। এই মাধ্যমেও অনলাইন প্ল্যাটফর্মটির সবচেয়ে বেশি দেখা কনটেন্ট হয়ে উঠেছে গডজিলা ভার্সেস কং।

সৌজন্যে :http://360binodon.com