কানাডার ফেডারেল নির্বাচন ২০১৯ : বিভিন্ন জরিপ কি বলছে… 

২১ অক্টোবর কানাডার জাতীয় নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। বর্তমান প্রেক্ষাপটে এ নির্বাচন খুবই গুরুত্বপূর্ণ। লিবারেল পার্টি এবং কনজারভেটিব পার্টির মধ্যে যে কেউ জয়ী হওয়ার প্রবল সম্ভাবনা। বিভিন্ন জরিপ তাই বলছে। ৫ সেপ্টেম্বরে করা ক্যাম্পেন রিসার্চের পুলে লিবারেল পার্টি ও কনজারভেটিব পার্টি উভয়েই ৩৪ শতাংশ জনসমর্থন নিয়ে এগিয়ে আছে। এনডিপির জনসমর্থন মাত্র ১২ শতাংশ। ৩০ আগষ্টে করা ন্যানোস রিসার্চের পুলে লিবারেল পার্টি এগিয়ে ৩৫.৪ শতাংশ জনসমর্থন নিয়ে। ৩১.৩ শতাংশ নিয়ে কনজারভেটিব পার্টি ২য় স্থানে এবং ১৫.৭ শতাংশ নিয়ে তৃতীয় স্থানে অবস্থান করছে এনডিপি। একই তারিখে করা ইকোস এর পুলে লিবারেল পার্টি ৩৭.২ শতাংশ জনসমর্থন নিয়ে এগিয়ে আছে। অন্যদিকে ৩২.৯ শতাংশ জনসমর্থন রয়েছে কনজারভেটিব পার্টির প্রতি। ল্যাজারের পুলে ৩৪ শতাংশ লিবারেল পার্টি এবং ৩৩ শতাংশ কনজারভেটিব পার্র্টির জনসমর্থন রয়েছে। তাই বলা যায়, এবারের নির্বাচন খুবই প্রতিযোগিতামূলক হবে। প্রদেশ অনুযায়ী লিবারেল পার্টি এগিয়ে আছে আটলান্টিক কানাডা, নিউফাউন্ডল্যান্ড ও ল্যাবরেডর, প্রিন্স এডওয়ার্ড আইল্যান্ড, নবো স্কোশিয়া, নিউ ব্রাউন্সিক, কুইবেক, অন্টারিওতে। মানিটোবায় বিশাল ব্যবধানে এগিয়ে কনজারভেটিব পার্টি। লিডারশিপ এর ক্ষেত্রে সর্বশেষ পুলে জাস্টিন ট্রুডো এগিয়ে আছেন। ৩০ আগষ্টের ন্যানোস রিসার্চের প্রকাশিত পুলে দেখা যাচ্ছে লিবারেল পার্টির জাস্টিন ট্রুডো ৩২.২ শতাংশ, কনজারভেটিব পার্টির এন্ড্রু শিয়ার ২৩.২ শতাংশ, গ্রীন পার্টি এলিজাবেথ মে ৮.৩ শতাংশ এবং এনডিপির জাগমিত সিং ৭.২ শতাংশ জনসমর্থন নিয়ে প্রতিযোগিতা করে যাচ্ছেন। নেতাদের মধ্যে নির্বাচনী বির্তক শুরুর পর জরিপে বেশ বড় রকমের পরিবর্তন দেখা যাবে। তাই অপেক্ষা করতে নির্বাচন দিন পর্যন্ত।